Biodata

আফরান নিশো (আহম্মেদ ফজলে রাব্বি)

একজন অভিনয়শিল্পী ও মডেল। তিনি ২০০৩ সাল থেকে ৮০০ টিরও বেশি টেলিফিল্ম এবং ধারাবাহিক নাটকে অভিনয় করে ব্যাপক জনপ্রিয়তা লাভ করেন।

তিনি ধারাবাহিক নাটক “যোগ-বিয়োগ” অভিনয়ের জন্য ২০১৬ সালে “মেরিল প্রথম আলো” সেরা পুরস্কার অর্জন করেন।

তিনি ধানমন্ডি সরকারি বালক বিদ্যালয় থেকে এস.এস.সি. এবং ঢাকা কলেজ থেকে এইচ.এস.সি. পাস করেন।
২০০৩ সালে “অমিতাভ রেজার” বিজ্ঞাপনে কাজ করার মাধ্যমে শুরু হয় তার অভিনয়ের জীবন।
তার প্রথম নাটক “ঘরছাড়া”।

নিশোর উল্লেখযোগ্য নাটকসমূহ হল

১.অপেক্ষার ফটোগ্রাফি,
২.আঁধার ও আলো ,
৩.বাদল দিনের প্রথম কদম ফুল,
৪.চলো না বৃষ্টিতে ভিজি,
৫.কায়াকর,
৬.লোটাকম্বল,
৭.বিয়ে পাগল, ইত্যাদি।

নিশোর গ্রামের বাড়ি টাঙ্গাইল আর বেড়ে উঠেছেন এলিফ্যান্ট রোডে।টাঙ্গাইল জেলার ভূঞাপুর উপজেলার অলোয়া ইউনিয়নের ভারই গ্রামের কৃতি সন্তান আফরান নিশো। স্থানীয় ভাবে তাদের বাড়ি ভারই সেন বাড়ি নামে পরিচিত।

তিনি ১৯৮৮ সালের ৮ ডিসেম্বর জন্ম গ্রহন করেন।

ছোট বেলা থেকে টাঙ্গাইল শহরে বেড়ে উঠেছেন।টাঙ্গাইল বিন্দুবাসিনী সরকারি উচ্চ বিদ্যালয়ে ৮ম শ্রেণি পর্যন্ত লেখা পড়া করেন। তিনি এস.এস.সি ধানমন্ডি সরকারি বালক বিদ্যালয় থেকে এবং এইচ.এস.সি ঢাকা কলেজ থেকে পাস করেন।এরপর ইস্টওয়েস্ট ইউনিভার্সিটি থেকে গ্যাজুয়েশন করেন। নিশো টানা ১৫ বছর প্রেম করে বিবাহ করেন। বিয়ের তিন বছর পর তারা প্রথম সন্তানের মুখ দেখেন।

আর নামের শুরুতে আফরান নামটি তিনি নিজেই দিয়েছিলেন । তার বয়স জানা যায় ৩৭ থেকে ৩৯–এর মধ্যে এবং তার উচ্চতা ৫ ফুট সাড়ে ১০ ইঞ্চি। সে বলেন কখনো আমার স্ত্রী–সন্তানের ছবি পাবলিকলি দিই না । পেশাগত ও ব্যক্তিজীবনকে আলাদা রাখতে পছন্দ করি । আফরান নিশোর বাবা মোঃ আবদুল হামিম মিয়া একজন মুক্তিযোদ্ধা এবং টাঙ্গাইল জেলা পরিষদের সদস্য ও ভূঞাপুর উপজেলা আওয়ামী লীগের যুগ্ম আহবায়ক ছিলেন। তিনি ফুসফুসে ক্যানসারজনিত রোগে ভুগে ১ অক্টোবর ২০২০ মৃত্যুবরণ করেন। নিশোর এক ভাই ও এক বোন রয়েছে।

আফরান নিশোর পুরো নাম আহমেদ ফজলে রাব্বি।

বর্তমান সময়ে ছোটপর্দায় সবচেয়ে জনপ্রিয় মুখ আফরান নিশো । এখন তাকে নাটক ও বিজ্ঞাপনে অভিনয় করানোর জন্য অনেক নির্মাতাদের শিডিউল হাতে অপেক্ষা করতে হয় । পাশাপাশি তিনি কাজ করেছেন দেশের বিভিন্ন বড় সব বিপণন প্রতিষ্ঠানের পণ্যের বিজ্ঞাপনে। কমেডি, রোমান্টিক কমেডি, এ্যাকশান, নেগেটিভ রোল কিংবা থ্রিলধর্মী সব ধরনের ক্যাটাগরিতেই সমান তালে অভিনয় করে চলেছেন এই গুনী অভিনেতা ।

তিনিই একমাত্র অভিনেতা যাকে দর্শকরা এমনকোন চরিত্রে দেখেনি যা বলা মুশকিল সেটা হোক, গ্রামের সহজ সরল যুবক, একজন মাঝির চরিত্র, একজন লিফম্যান, একজন পাগলের চরিত্র, হকার বা ফেরিওয়ালার চরিত্র, কিংবা মোবাইল মেকানিক্যাল, বা গ্যাং লিডির, একজন প্রেমিক বা স্বামী সব ধরনের চরিত্রে নিজেকে উজার করে দেন এই অভিনেতা ।

তাকে দর্শকরা এমনকোন চরিত্রে দেখেনি যা বলা মুশকিল সেটা হোক, গ্রামের সহজ সরল যুবক, একজন ড্রাইভার , একজন পাগলের চরিত্র, ফেরিওয়ালার চরিত্র, কিংবা মোবাইল মেকানিক্যাল, বা গ্যাং লিডার, একজন প্রেমিক বা স্বামী সব ধরনের চরিত্রে একনিষ্ঠ ভাবে কাজ করেন। একজন অভিনেতা যে এত অসাধারন এবং ন্যাচারাল অভিনয় করতে পারে যা নিশোর অভিনয় দেখলেই সকলে উপলদ্ধি করেন । তাই তো এদেশের তরুন প্রজন্ম তাকে নাটকের বস বা গুরু বলে সম্বোধন করেন ।

আফরান নিশো
আফরান নিশো

আফরান নিশো বায়োগ্রাফি

 

নামঃ আহমেদ ফজলে রাব্বী নিশো
জন্মঃ ৮ ডিসেম্বর ১৯৮০ (বয়স ৪১)
জন্মস্থানঃ ভূঞাপুর উপজেলা, টাঙ্গাইল, বাংলাদেশ
জাতীয়তাঃ বাংলাদেশী
পেশাঃ মডেল, অভিনেতা
কর্মজীবনঃ ২০০৩-বর্তমান
সন্তানঃ
পুরস্কারঃ মেরিল-প্রথম আলো পুরস্কার

আশাকরি আফরান নিশোর বায়োগ্রাফি এবং তার জীবন বৃত্তান্ত জেনে সন্তুষ্ট হয়েছেন।এরকম আরো নতুন নতুন পোস্ট পেতে আমাদের ওয়েবসাইট ভিজিট করতে পারেন।

Related Articles

Back to top button